পুরো গ্রামের বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করে প্রেমিকার সঙ্গে দেখা করতেন প্রেমিক

সাতকাহন ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক

সব প্রেমিক জুটিদের একটাই দুশ্চিন্তা, প্রেমিকার সাথে দেখা করতে হবে কিন্তু লোকজনের নজরে পড়া যাবে না। এই সমস্যার অভিনব সমাধান বের করেন ভারতের বিহার রাজ্যের পুর্নিয়া জেলার গণেশপুর গ্রামের বাসিন্দা এক ব্যক্তি। তিনি পুরো গ্রামের বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করে তবেই প্রেমিকার সাথে দেখা করতেন।

গালফ নিউজের প্রতিবেদনে জানা যায়, সবার নজর এড়িয়ে প্রেম করতেই এমন অভিনব পন্থা বেছে নেন সেই প্রেমিক। যিনি পেশায় একজন ইলেকট্রিশিয়ান। যে কারণে বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করে পরে আবার ঠিক করে দেয়া তার কাছে কোনো বিষয়ই ছিল না। অন্ধকারে প্রেমিকার সাথে দেখা করতে গেলে লোকের নজরে পড়ার সম্ভাবনা কম ছিল। তারপরও একদিন ধরা পড়েন ওই ব্যক্তি।

গ্রামে প্রতিদিন সন্ধ্যায় একটি নির্দিষ্ট সময়ে দুই থেকে তিন ঘণ্টা বিদ্যুৎ থাকত না। গ্রামের মানুষ এই অদ্ভুত লোডশেডিংয়ে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছিলেন। বিদ্যুৎ অফিসে যোগাযোগ করলে সেখান থেকে লোডশেডিংয়ের বিষয়টি অস্বীকার করা হয়। গ্রামবাসীদের দাবিতে শুরু হয় তদন্ত। সেই তদন্তে বেরিয়ে আসে, এই কাণ্ড ঘটাচ্ছেন এক ইলেকট্রিশিয়ান

এরপর গ্রামবাসী সেই ইলেকট্রিশিয়ানকে হাতেনাতে ধরে ফেলে। একদিন বিদ্যুৎ যাওয়ার পর গ্রামের একটি সরকারি স্কুলে প্রেমিক-প্রেমিকাকে অন্তরঙ্গ অবস্থাতয় দেখতে পায় গ্রামবাসী।

পরে ওই ইলেকট্রিশিয়ানকে গণধোলাই দেয়া হয়। পরদিন পঞ্চায়েতের সভায় প্রেমিকার সাথে সেই ইলেকট্রিশিয়ানের বিয়ে দিয়ে দেয়া হয়।